ভাগ্য পাল্টাতে চান? কাগজে এই মন্ত্রটি লিখে ঠাকুরঘরে একমাস রেখে দিন

Life24 Desk   -  

অনেক সময় এমন হয় যে কোনও না কোনও কারণে পারিবারিক জীবনে অশান্তি লেগেই থাকে। কিছু না কিছু নিয়ে সমস্যা চলতেই থাকে। এরকমটা অনেক সংসারেই হয়। কিন্তু পারিবারিক অশান্তি থাকলে কারওরই ভালো লাগে না। কারণ সবাই পরিবার নিয়ে সুখে শান্তিতে থাকতে চান। সবাই চান পরিবারের সকলের সঙ্গে যেন সকলের সুসম্পর্ক বজায় থাকে।

কিন্তু তারপরও কোথাও না কোথাও গাফিলতি থেকে যাওয়ার জন্য বিভিন্ন অশান্তির সূত্রপাত ঘটে। আর পারিবারিক কলহের জেরে মন মেজাজ ভালো থাকে না ফলে কোনও কাজে মনও বসে না। পড়ুয়া হলে পড়াশোনাতেও যথেষ্ট ক্ষতি হয়। বাধ্য হয়েই তখন নিজেরা নিজেদের ভাগ্যকে দোষারোপ করেন।

এরকম হলে যাঁরা শাস্ত্রে, জ্যোতিষে বিশ্বাসী তাঁরা ভাগ্য ফেরানোর জন্য কত চেষ্টাই না করেন। কেউবা নামিদামি জ্যোতিষের কাছে যান পরামর্শ নিতে। কথামতো বহুমূল্যের পাথর ধারণও করেন। এক কথায় বলতে গেলে কোনও চেষ্টাই বাকি রাখে ন না। কিন্তু সেখানেও ঝামেলা অনেক কারণ জ্যোতিষদের মধ্যে অনেকেই ভণ্ডামি করেন ফলে তাদের পরামর্শে আশানুরূপ ফল না পাওয়ার আশঙ্কাই বেশি থাকে।

এছাড়াও মধ্যবিত্ত অথবা গরিব শ্রেণীর মানুষরা জ্যোতিষের পর্যাপ্ত পারিশ্রমিকই পাবে কোথায় আর বহুমূল্যের রত্ন ধারনের জন্য প্রয়োজনীয় অর্থও তাদের কাছে নেই? তবে তাদের ভাগ্য ফেরানোর উপায়? আছে।

নিজের ভাগ্যের উপর থেকে শনির নজর কাটিয়ে তুলতে কিংবা দুষ্ট গ্রহের প্রভাব বিনাশ করার জন্য সহজসাধ্য উপায় একটিই। আর এই উপায় সমস্ত শ্রেণীর মানুষই অনুসরণ করতে পারেন। উপায়টি খুব সাধারণ হলেও অজানা অনেকেরই। দেখে নিন কি সেই উপায় যা আপনাকে দূর্ভাগ্যের পথ থেকে মুক্তির উপায় বার করে দেবে।

উপায়টি আর কিছুই নয় গায়েত্রী মন্ত্র। প্রায় সকলেই যানে এই মন্ত্র। তবে গায়ত্রী মন্ত্র জপ নয়। আপনাকে একটি কাগজে লিখতে হবে মন্ত্রটি এবং লিখে সেই কাগজে কিছু গাঁদা ফুল ছিটিয়ে, ফুল সমেত কাগজটি মুড়ে ফেলে রাখতে হবে মা দূর্গার মূর্তি বা ছবির সামনে। ঠাকুরঘরে সাধারণত ছবিই থাকে তাই ছবির সামনেই ফেলে রাখা যেতে পারে।

যেহেতু আমরা জানি দেবী দূর্গাকে দূর্গতিবিনাশিনী বলা হয়, তাই এই গায়ত্রী মন্ত্রই ফিরিয়ে আনবে আপনার সৌভাগ্য। তবে, কিছু নিয়ম আছে। আপনাকে কাগজটি অন্তত একমাস রাখতে হবে দেবী দূর্গার সামনে, তার আগে কাগজটি আপনি অশুদ্ধ কাপড়ে কখনওই ছোঁবেন না এবং একেবারেই খুলবেন না।

এই গায়ত্রী মন্ত্রটি হল- ওঁ ভূর্ভুবঃ স্বঃতৎ সবিতুর্বরেণ্যং ভর্গো দেবস্য ধীমহি ধিয়ো য়ো নঃ প্রচোদয়াৎ।

Spread the love

আপনার প্রিয় ওয়েব ম্যাগাজিন ‘Life24’-এ আপনিও লিখতে পারেন এই ম্যাগাজিনের উপযুক্ত যে কোনও লেখা। লেখার সঙ্গে পাঠাবেন উপযুক্ত ২-৩টি ফটো। লেখা পাঠাবেন ইউনিকোডে টাইপ করে। ইউনিকোড ছাড়া কোনও লেখাই গ্রহণ করা হবে না। লেখা ও ফটো পাঠাবেন editor.life24@gmail.com আইডি-তে। কোন সেগমেন্টের লেখা পাঠাচ্ছেন, তা মেলের সাবজেক্টে অবশ্যই লিখে দেবেন। আর অবশ্যই মেলে আপনার নাম, ঠিকানা ও ফোন নম্বর জানাবেন।

Life24 ওয়েব ম্যাগাজিনে খুব কম খরচে আপনার পণ্য কিংবা সংস্থার বিজ্ঞাপন দিতে পারবেন। বিস্তারিত জানার জন্য মেল করুন advt.bearsmedia@gmail.com আইডি-তে।

Life24 ওয়েব ম্যাগাজিনে ৩১ মার্চ পর্যন্ত আপনি একেবারেই বিনামূল্যে দিতে পারবেন শ্রেণীবদ্ধ বিজ্ঞাপন। এই বিভাগের যে কোনও সেগমেন্টের জন্য ৫০ শব্দের মধ্যে ইউনিকোডে লিখে মেল করে দিন advt.bearsmedia@gmail.com আইডি-তে।  মেলের সাবজেক্টে লিখে দেবেন 'শ্রেণীবদ্ধ বিজ্ঞাপন'।

# 'Life24' ওয়েব ম্যাগাজিন বা এই ওয়েব ম্যাগাজিনের লেখা সম্পর্কে আপনার মতামত লিখে জানান নিচের কমেন্ট বক্স-এ। আর হ্যাঁ, ম্যাগাজিনটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন আপনার পরিচিতদের।