সাইক্লোনের কারণে আমগাছই আঁতুড়ঘর

Life24 Desk   -  
ইদাইয় নামের স্লাইকোনের দাপটে সব শেষ। অনেকে মারা গিয়েছে। কেউ ঘর ছাড়া হয়ছেন। তবে এক মাকে দেখা গেল অন্য রূপে।  তিনি ছাতার মতো রোদ-ঝড়-জল থেকে আড়াল করে রাখেন তাঁর বছর দু’য়েকের সন্তানকে৷ বিপর্যয় যতই আসুক না কেন, সন্তানদের রক্ষা করবেন, এই ভাবনায় ওই মহিলা যা আম গাছের ওপরেই বাড়ি বানিয়ে ফেলেছেন।
গত মাসের শুরু দিকে আচমকাই সাইক্লোন ইদাই আছড়ে পড়েছিল দক্ষিণ আফ্রিকার মোজাম্বিকে৷ মুহূর্তের মধ্যে লণ্ডভণ্ড হয়ে যায় সব কিছু৷ বদলে দেয় মোজাম্বিকের চেহারা৷এক্কেবারে বিপর্যস্ত হয়ে যায় গোটা এলাকা৷ ভেঙে যায় বাড়িঘর৷ আশ্রয়হীন হয়ে পড়েন শয়ে-শয়ে মানুষ৷ সেই তালিকাতেই ছিলেন আমেলিয়া৷ ঘুম ভেঙে একদিন দেখেন, তাঁর বাড়িও ভেঙে গিয়েছে৷ বাড়ির মেঝেতেও ঢুকে গিয়েছে জল৷ দু’বছরের সন্তানকে নিয়ে বাড়ি ছেড়ে বেড়িয়ে পড়েন তিনি৷ একে ন’মাসের সন্তানসম্ভবা, তার উপর আবার প্রাকৃতিক বিপর্যয়ে মাথার ছাদটুকুও চলে গিয়েছে৷ কোথায় যাবেন, কিছুই ভেবে পাচ্ছিলেন আমেলিয়া৷
সন্তানকে সঙ্গে নিয়ে বাড়ির সামনে একটি আমগাছের নিচেই আশ্রয় নিয়েছিলেন তিনি৷ কিন্তু প্রাকৃতিক বিপর্যয়ের মাঝেই সন্তান ভূমিষ্ঠ হওয়ার ইঙ্গিত পান আমেলিয়া৷ তড়িঘড়ি আমগাছের উপরে উঠে পড়েন৷ সেখানেই একটি ফুটফুটে কন্যা সন্তানের জন্ম দেন৷ দু’দিনের জন্য আমগাছই হয়ে গিয়েছিল আমেলিয়ার আঁতুড়ঘর৷ বিপর্যয় মোকাবিলা বাহিনী তাঁকে উদ্ধার করেন৷ মা এবং সদ্যোজাত আপাতত সুস্থ রয়েছে৷ সাধ করে আমেলিয়া মেয়ের নাম রেখেছেন- সারা৷
এদিকে, সাইক্লোন ইদাইয়ের করাল গ্রাসে মোজাম্বিকের অবস্থা অত্যন্ত সঙ্গীন৷ প্রাণ হারিয়েছেন অন্তত সাতশোজন৷ ভেঙে গিয়েছে বহু ঘরবাড়ি৷ আশ্রয় হারিয়ে ত্রাণশিবিরে ঠাঁই নিয়েছেন অনেকেই৷ কলেরা, জ্বরে ভুগছেন বিপর্যস্তরা৷ কলেরায় অসুস্থের সংখ্যা প্রায় হাজার ছাড়িয়েছে৷ সরকারি সূত্রে খবর, ইতিমধ্যেই একজন কলেরায় মারা গিয়েছেন৷ অসুস্থদের অবস্থা অত্যন্ত আশঙ্কাজনক৷ যুদ্ধকালীন তৎপরতায় বিপর্যস্তদের উদ্ধারকাজ চলছে৷এসবের মাঝে সারার আগমনই বুঝিয়ে দিয়েছেন, প্রকৃতি ধ্বংস করে তো মানুষ সৃষ্টি করে৷ ভাঙাগড়ার খেলা একইসঙ্গে চলতে থাকে৷
Spread the love

আপনার প্রিয় ওয়েব ম্যাগাজিন ‘Life24’-এ আপনিও লিখতে পারেন এই ম্যাগাজিনের উপযুক্ত যে কোনও লেখা। লেখার সঙ্গে পাঠাবেন উপযুক্ত ২-৩টি ফটো। লেখা পাঠাবেন ইউনিকোডে টাইপ করে। ইউনিকোড ছাড়া কোনও লেখাই গ্রহণ করা হবে না। লেখা ও ফটো পাঠাবেন editor.life24@gmail.com আইডি-তে। কোন সেগমেন্টের লেখা পাঠাচ্ছেন, তা মেলের সাবজেক্টে অবশ্যই লিখে দেবেন। আর অবশ্যই মেলে আপনার নাম, ঠিকানা ও ফোন নম্বর জানাবেন।

Life24 ওয়েব ম্যাগাজিনে খুব কম খরচে আপনার পণ্য কিংবা সংস্থার বিজ্ঞাপন দিতে পারবেন। বিস্তারিত জানার জন্য মেল করুন advt.bearsmedia@gmail.com আইডি-তে।

Life24 ওয়েব ম্যাগাজিনে ৩১ মার্চ পর্যন্ত আপনি একেবারেই বিনামূল্যে দিতে পারবেন শ্রেণীবদ্ধ বিজ্ঞাপন। এই বিভাগের যে কোনও সেগমেন্টের জন্য ৫০ শব্দের মধ্যে ইউনিকোডে লিখে মেল করে দিন advt.bearsmedia@gmail.com আইডি-তে।  মেলের সাবজেক্টে লিখে দেবেন 'শ্রেণীবদ্ধ বিজ্ঞাপন'।

# 'Life24' ওয়েব ম্যাগাজিন বা এই ওয়েব ম্যাগাজিনের লেখা সম্পর্কে আপনার মতামত লিখে জানান নিচের কমেন্ট বক্স-এ। আর হ্যাঁ, ম্যাগাজিনটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন আপনার পরিচিতদের।