সতীনের ঝামেলায় আত্মহত্যা শিক্ষকের

Life24 Desk   -  

মৃতের নাম রাজেশচন্দ্র প্রসাদ। বয়স ৪৬। ঘটনাটি গাজোল থানার পূর্ব কলেজপাড়ার। খবর পেয়ে ঘটনাস্থানে পৌঁছায় পুলিশ। মৃতদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য মালদা মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। ঘটনার প্রেক্ষিতে মৃতের দুই স্ত্রী একে অন্যের বিরুদ্ধে পুলিশে অভিযোগ দায়ের করেছে। অভিযোগের ভিত্তিতে ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে পুলিশ।

গাজোল থানার OC হারাধন দেব জানান, গতরাতে পূর্ব কলেজপাড়া এলাকায় এক শিক্ষকের অস্বাভাবিক মৃত্যু হয়েছে। পুলিশ বাড়ি থেকে মৃতদেহটি উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য আজ মালদা মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতালে পাঠিয়েছে। পারিবারিক বিবাদের জেরেই এই ঘটনা বলে অনুমান। তদন্ত শুরু করা হয়েছে।

রাজেশচন্দ্রের বাড়ি গাজোলের পূর্ব কলেজপাড়ায়। তিনি গাজোলের বরিজপুর প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক ছিলেন।একজন গম্ভীরা শিল্পী হিসাবেও পরিচিত ছিলেন।স্থানীয়দের থেফে জানা যায়, দীর্ঘদিন আগে রাজেশবাবু দুর্গাকে বিয়ে করেন। কিন্তু তাঁদের বিবাহিত জীবন সুখের হয়নি। বিয়ের কিছুদিন পরেই দুর্গাদেবী রাজেশবাবুর সংসার ছেড়ে পাশের গ্রামে চলে যান। পরবর্তীতে তাঁদের মধ্যে সমস্ত সম্পর্কও চ্ছিন্ন হয়ে যায়। যদিও তাঁদের আইনি বিচ্ছেদ হয়নি। দু-বছর আগে রাজেশবাবু পিঙ্কি মিস্ত্রি নামে একজনকে বিয়ে করেন এবং পূর্ব কলেজপাড়ায় নিজের বাড়িতে বসবাস করতেন তিনি।এই বিয়ের পরই দুর্গাদেবী নিজের অধিকার একইসঙ্গে স্বামীর সম্পত্তির দাবি করতে শুরু করেন। এ নিয়ে দুই সতীনের বিবাদ চরমে ওঠে।

দুর্গা রবিবার রাতে দলবল নিয়ে বাড়িতে চড়াও হয়ে ব্যাপক ঝামেলা করে।পিঙ্কির মাথাও ফাটিয়ে দেয়।এই ঘটনার পরেই রাজেশচন্দ্রবাবু মানসিকভাবে ভেঙে পড়েন।গতকাল রাতে বাইরে থেকে কীটনাশক খেয়ে বাড়ি ফিরে আসেন তিনি। কিছুক্ষণ পর তাঁর মুখ থেকে গ্যাঁজলা বেরোতে শুরু করে।খানিক পরেই মারা যান।

পিঙ্কি জানান, বিয়ের পর থেকেই দুর্গা ঝামেলা করত।এমন কী তার স্বামীকেও জেলে ভরে সে। আদালতের নির্দেশ প্রতি মাসে ১১ হাজার টাকা খোরপোষ দিতে হত রাজেশচন্দ্রবাবুকে। গত ৬ মাস ধরে ওর সঙ্গে সম্পর্কও খানিকটা ভালো হয়েছিল।রাজেশচন্দ্রবাবুর নামে গাজোলে ২৮ শতক জায়গা আছে। এখন সেই জায়গার প্রচুর দাম।সে ওই জায়গা বিক্রি করার জন্য স্বামীকে চাপ দিচ্ছিল।জায়গা বিক্রি করে টাকা নেওয়াই ছিল মূল উদ্দেশ্য।এর আগে ২-৩ লাখ টাকা চেয়েছিল। কিন্তু রাজেশচন্দ্রবাবু ওই টাকা দিতে রাজি হননি।কারণ, আগেই বাড়িটি দুর্গার নামে করে দিয়েছেন তিনি। দেড় কাঠা জমিও সে তাদের নামে করে দিয়েছিলেন। এই ঘটনায় দুর্গা প্রসাদের বিরুদ্ধে স্বামীকে আত্মহত্যায় প্ররোচনা দেওয়ার অভিযোগ দায়ের করেছেন পিঙ্কি।

অন্যদিকে পিঙ্কির বিরুদ্ধেও গাজোল থানায় একই অভিযোগ দায়ের করেছেন দুর্গা। নিজের অভিযোগপত্রে তিনি জানিয়েছেন, স্বামীকে বশ করে সম্পত্তি হাতিয়ে নেওয়ার চেষ্টা করছিল পিঙ্কি।

Spread the love

আপনার প্রিয় ওয়েব ম্যাগাজিন ‘Life24’-এ আপনিও লিখতে পারেন এই ম্যাগাজিনের উপযুক্ত যে কোনও লেখা। লেখার সঙ্গে পাঠাবেন উপযুক্ত ২-৩টি ফটো। লেখা পাঠাবেন ইউনিকোডে টাইপ করে। ইউনিকোড ছাড়া কোনও লেখাই গ্রহণ করা হবে না। লেখা ও ফটো পাঠাবেন editor.life24@gmail.com আইডি-তে। কোন সেগমেন্টের লেখা পাঠাচ্ছেন, তা মেলের সাবজেক্টে অবশ্যই লিখে দেবেন। আর অবশ্যই মেলে আপনার নাম, ঠিকানা ও ফোন নম্বর জানাবেন।

Life24 ওয়েব ম্যাগাজিনে খুব কম খরচে আপনার পণ্য কিংবা সংস্থার বিজ্ঞাপন দিতে পারবেন। বিস্তারিত জানার জন্য মেল করুন advt.bearsmedia@gmail.com আইডি-তে।

Life24 ওয়েব ম্যাগাজিনে ৩১ মার্চ পর্যন্ত আপনি একেবারেই বিনামূল্যে দিতে পারবেন শ্রেণীবদ্ধ বিজ্ঞাপন। এই বিভাগের যে কোনও সেগমেন্টের জন্য ৫০ শব্দের মধ্যে ইউনিকোডে লিখে মেল করে দিন advt.bearsmedia@gmail.com আইডি-তে।  মেলের সাবজেক্টে লিখে দেবেন 'শ্রেণীবদ্ধ বিজ্ঞাপন'।

# 'Life24' ওয়েব ম্যাগাজিন বা এই ওয়েব ম্যাগাজিনের লেখা সম্পর্কে আপনার মতামত লিখে জানান নিচের কমেন্ট বক্স-এ। আর হ্যাঁ, ম্যাগাজিনটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন আপনার পরিচিতদের।